1. [email protected] : সকাল নারায়ণগঞ্জ : সকাল নারায়ণগঞ্জ
  2. [email protected] : skriaz30 :
  3. : wpcron20dc4723 :
ফতুল্লায় ভাইয়ের সামনে থেকে বোনকে গনধর্ষণের ঘটনা আসামীকে গ্রফতার করার দাবি-পুলিশ সুপার মনিরুল ইসলাম - সকাল নারায়ণগঞ্জ
সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ১১:৪৭ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ আপডেট
এরশাদের ৫ম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষ্যে মুন্সিগঞ্জ জেলা জাপা’র মিলাদ , দোয়া ও খাবার বিতরন  রূপগঞ্জে পুলিশের অভিযানে ৬ অপহরণকারী আটক  জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরের ঠিকাদারদের সাথে লিরা গ্রুপ অব ইন্ডাস্ট্রিজ”র মতবিনিময় সভা-সম্পন্ন  ফ‌টো সাংবা‌দিক ‌মোক্তা‌র হোসেনের মাতার ইন্তেকা‌লে আজ‌মেরী ওসমা‌নের গভীর শোক না’গঞ্জ জেলা ও মহানগর ঐক‌্য প‌রিষ‌দের কর্মী স‌ম্মেলন অনু‌ষ্ঠিত পূর্বাচলে শতাধিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ রূপগঞ্জে বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস উপলক্ষে উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের বিশেষ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত মুক্তিযুদ্ধে শরণার্থী শিবিরে ভারতের ভূমিকা শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত সাকিব খানের গোপনাঙ্গ কেটে ফেললেন স্ত্রী  রূপগঞ্জে কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে সার ও বীজ বিতরণ

ফতুল্লায় ভাইয়ের সামনে থেকে বোনকে গনধর্ষণের ঘটনা আসামীকে গ্রফতার করার দাবি-পুলিশ সুপার মনিরুল ইসলাম

সকাল নারায়ণগঞ্জঃ
  • আপডেট বুধবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ১৪৮ Time View
ফতুল্লায় ভাইয়ের সামনে থেকে বোনকে গনধর্ষণের ঘটনা আসামীকে গ্রফতার করার দাবি-পুলিশ সুপার মনিরুল ইসলাম
ফতুল্লায় ভাইয়ের সামনে থেকে বোনকে গনধর্ষণের ঘটনা আসামীকে গ্রফতার করার দাবি-পুলিশ সুপার মনিরুল ইসলাম (ছবি সকাল নারায়ানগঞ্জ)

সকাল নারায়ানগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় ভাইয়ের সামনে থেকে বোনকে গনধর্ষণের ঘটনার মাত্র ৮/৯ ঘন্টার ব্যবধানে ঘটনার সাথে যুক্ত সকল আসামীকে গ্রফতার করার দাবি করেছেন জেলার ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মনিরুল ইসলাম।

তিনি জানান, আগেরদিন সোমবার (৯ ডিসেম্বর) সন্ধা ৬ টারদিকে বটতলা রেল লাইনের পাশ দিয়ে আব্দুল কাদের ও তার চাচাতো বোন হেটে বাড়ি ফেরার উদ্দেশ্য যাচ্ছিল। এ সময় ৪ যুবক মিলে তাদের পথ রোধ করে দুজনকে দুইদিকে নিয়ে যায়। পরে ভাইকে মারধর করে এবং পকেটে থাকা ৩৪’শ টাকা নিয়ে তার সামনে থেকে বোনকে তুলে নিয়ে পাশবর্তী মমিন হাজির ইটভাটা সংলগ্ন একটি টং দোকানে রাত সাড়ে ৮ টা পর্যন্ত আটকে রেখে ৭ জনে মিলে গনধর্ষণ করে।

মঙ্গলবার (১০ ডিসেম্বর) দুপুর ১২ টায় ফতুল্লা মডেল থানার সেমিনার কক্ষে সংবাদ সম্মেলন করে তিনি এই দাবি করেন।

আক্রান্ত তরুনী ও তার চাচাতো ভাই সদর থানাধীন গোগনগর ইউনিয়নের ফকির বাড়ি এলাকায় ভাড়ায় বসবাস সহ সখানে একটি কয়েল ফ্যাক্টরীতে কাজ করতো। ওই ফ্যাক্টরী বন্ধ হয়ে যাওয়ায় গতকাল বিকেলে তারা গার্মেন্টসে চাকরির খোঁজে ফতুল্লার বটতলা এলাকায় এসেছিল।

তিনি আরো জানান, মাসুম নামের এক ব্যক্তি ৯৯৯ এ ফোন করে পুলিশকে বিষয়টি অবহিত করলে পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে এবং রাতভর অভিযান চালিয়ে ঘটনার সাথে যুক্ত ৬ জনকে আটক করা হয়।

ধৃত আসামীরা হলো-দক্ষিন সেহাচর এলাকার সিরাজ মিয়ার ছেলে রাসেল (৩৮), মৃত রুকু মিয়ার ছেলে সুজন মিয়া (২৩), মৃত খোরশেদ আলমের ছেলে সাহাদাৎ হোসেন (২২), মো. ফরিদ মিয়ার ছেলে সুমন (২২), হাদিছুর রহমানের ছেলে মো. রবিন (২৩) ও আব্দুল লতিফের ছেলে মো. আল-আমিন।

এ ব্যাপারে ধৃতদের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে ফতুল্লা মডেল থানায় মামলা দায়েরের পর রিমান্ড চেয়ে আদালতে প্ররণ কার্যক্রম পক্রিয়াধীন রয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক) সার্কেল মেহেদী ইমরান সিদ্দিকী, থারর অফিসার ইনচার্জ আসলাম হোসেন, তদন্ত ওসি মিজানুর রহমান ও ওসি অপারেশন সাখাওয়াত হোসেন প্রমূখ।

আরও সংবাদ
© ২০২৩ | সকল স্বত্ব সকাল নারায়ণগঞ্জ কর্তৃক সংরক্ষিত
DEVELOPED BY RIAZUL