বেগম জিয়ার কিছু হলে সারাদেশে আগুন জ্বলবে: মহানগর বিএনপি

সকাল নারায়ণগঞ্জ:

বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও চিকিৎসার জন্যে দ্রুত বিদেশ প্রেরণের দাবিতে প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার (২২ নভেম্বর) বিকেল সাড়ে ৩টায় চাষাড়া বালুর মাঠ সড়কে নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির উদ্যোগে সমাবেশটি অনুষ্ঠিত হয়।

সমাবেশে নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির সহসভাপতি অ্যাড. জাকির হোসেনের সভাপতিত্বে ও সাংগঠনিক অ্যাড. আবু আল ইউসুফ খান টিপুর সঞ্চালনায় উপস্থিত ছিলেন, মহানগর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সবুর খান সেন্টু, যুগ্ম সম্পাদক আওলাদ হোসেন, স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা. মজিবুর রহমান, সহপ্রচার সম্পাদক মাকিদ মোস্তাকিম শিপলু, মহানগর শ্রমিক দলের যুগ্ম আহবায়ক মনির মল্লিক, সদস্য সচিব আলী আজগর, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক জিয়াউর রহমান জিয়া,  মহানগর মহিলা দলের সভাপতি দিলারা মাসুদ ময়না, নাসিকের সংরক্ষিত কাউন্সিলর সাধারণ সম্পাদক আয়শা আক্তার দিনা প্রমুখ।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, বেগম জিয়া আমাদের দেশের তিনবার প্রধানমন্ত্রী ছিলেন। তিনি এই ফ্যাসিস্ট সরকারের আমলে কারগারে থেকে জটিল রোগে আক্রান্ত আছেন। তিনি কারাগারা থাকাকালীন অবস্থাতেই আমরা সরকারের কাছে দাবি জানিয়েছিলাম তাকে যেন উন্নত চিকিৎসার জন্যে বিদেশে পাঠানো হয়। কিন্তু তাকে সেসময় বিদেশে যেতে দেয়নি সরকার এবং দেশেও সুচিকিৎসার ব্যবস্থা করেনি। আজকে সরকার বেগম জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে যে তালবাহানা করছে তাদের উদ্দেশ্যে বলতে চাই, আপনাদেরও একদিন এসময় আসবে এবং একই অবস্থা আপনাদেরও হবে। একদেশে দুই আইন চলতে পারে না। আপনাদের নেতারা অসুস্থ হলে তাদের বিদেশে পাঠিয়ে চিকিৎসা করেন আর বিরোধী দলের নেত্রী ও তাদের নেতাকর্মীরা অসুস্থ হলে সে চিকিৎসা আপনারা করতে দিবেন না! এটা কিসের আইন! দেশে যদি আইন থাকতো তাহলে আমাদের দেশনেত্রী অনেক আগে থেকেই রাজপথে থাকতো এবং তিনি সুস্থ হয়ে যেতেন। আজকে সব জায়গায় দলীয়করণ। আজকে খালেদা জিয়াকে নিয়ে যে খেলা খেলছেন শেখ হাসিনা সে অবস্থা একদিন আপনারও হবে। এখনও সময় আছে খালেদা জিয়াকে চিকিৎসার জন্যে বিদেশে পাঠান। যদি তার কিছু হয় তাহলে সারাদেশে আগুন দাউ দাউ করে জ্বলবে।