বন্দরে মহিলাসহ ৬ ডাকাত গ্রেপ্তার

সকাল নারায়ণগঞ্জঃ

স্টাফ রিপোর্টার (আশিক)

বন্দরে এম জামাল উদ্দিন টেক্সটাইল মিলে ডাকাতি ঘটনায় জড়িত থাকার অপরাধে মহিলাসহ ৬ ডাকাতকে গ্রেপ্তার করেছে কামতাল তদন্ত কেন্দ্র পুলিশ।

 
মঙ্গলবার (৩ নভেম্বর) ভোর ৬টায় বন্দর উপজেলার মালিবাগ এলাকায় অভিযান চালিয়ে এদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়। ওই সময় পুলিশ ডাকাতদের কাছ থেকে লুন্ঠিত মোবাইল সেট দুইটি উদ্ধার করে। যার মামলা নং- ৭(১১)২০। ধারা- স৩৯৫/৩৯৭ পিসি। 


গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- রংপুর জেলার সদর থানার ময়নাকুটি এলাকার মৃত আবুল হোসেন মিয়ার ছেলে মোস্তাফিজুর রহমান (৫০), নোয়াখালি জেলার বেগমগঞ্জ থানার সধুদিততলী এলাকার মৃত অলী উল্ল্যাহ মিযার ছেলে আবুল খায়ের (৫৫), নারায়ণগঞ্জ জেলার বন্দর থানার বাঙ্গালবাড়ী এলাকার মৃত আব্দুল আউয়াল মিয়ার ছেলে রায়হান (৪৯), রাজশাহী জেলার পুটিয়া থানার ভালুকাগাছি এলাকার আতাউর রহমান মিয়ার ছেলে আমিরুল ইসলাম (২৫), মাদারীপুর জেলার রাঝের থানার দক্ষিন সারিস্তাবাদ এলাকার শওকত মুন্সি ছেলে পারভেজ মুন্সী (২৪) ও নারায়ণগঞ্জ জেলার বন্দর থানার মালিবাগ এলাকার মামুন মিয়ার বাড়ী ভাড়াটিয়া ও উক্ত এলাকার দুলাল মিয়ার স্ত্রী নাছিরা বেগম (৩৯)।


এ ব্যাপারে মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা কামতাল ফাঁড়ী ইনর্চাজ ইন্সপেক্টর শফিকুল ইসলাম গনমাধ্যমকে জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমরা মালিবাগ এলাকার মামুন মিয়ার ভাড়াটিয়া বাড়ীতে অভিযান চালিয়ে নাছিরা বেগমকে আটক করে। 


পরে তার কাছ থেকে ডাকাতি হওয়া দুটি মোবাইল সেট উদ্ধার করতে সক্ষম হই। পরে ধৃত নাছিরা বেগমকে সাথে নিয়ে বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে আরো ৫ ডাকাতকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হই। গ্রেপ্তারকৃতরা বর্তমানে থানা হাজতে আটক আছে।

গ্রেপ্তারকৃতদের ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।   প্রসঙ্গত, গত ৩১শে অক্টোবর শনিবার  রাত ৩টায় বন্দর উপজেলার ঢাকা টু চট্রগ্রাম মহাসড়কের জাঙ্গাল এলাকাস্থ এম জামাল উদ্দিন ট্যাক্সটাইল মিলে ডাকাতি ঘটনা ঘটে। ওই সময় ১৪/১৫ জনের একটি ডাকাত দল ৪ নৈশ্য প্রহরীকে হাত পা বেধে প্রায় ২৫ লাখ টাকার মালামাল ডাকাতি করে নিয়ে যায়।


এ ব্যাপারে এম জামাল উদ্দিন কোম্পানীর কর্মকর্তা মিজানুর রহমান বাদী হয়ে ২ নভেম্বর সোমবার দুপুরে বন্দর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।