হকার জুবায়ের হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় ইকবাল গ্রেফতার হলেও, গ্রেফতার হচ্ছেনা মাস্টারমাইন্ড আসাদ! কেন?

সকাল নারায়ণগঞ্জঃ

স্টাফ রিপোর্টার (আশিক):

নারায়ণগঞ্জ শহরের বঙ্গবন্ধু সড়কের ফুটপাতে হকারদের দুই পক্ষের  সংঘর্ষে  জুবায়ের নামে এক হকার নিহত হয়েছেন। নিহত হকার জুবায়ের ফতুল্লার উত্তর মাসদাইর এলাকার আমজাদ হোসেনের ছেলে।


গত বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) নগরীর বঙ্গবন্ধু সড়কের সাধুর পৌল গীর্জার সামনে ফুটপাতে দোকান বসানোকে কেন্দ্র করে এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। 


পুলিশ জানায়, ফুটপাতে দোকান বসানোকে কেন্দ্র করে হকার স্বপন ও সাঈদুলের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে তা সংঘর্ষে রুপ নেয়। দ্বিতীয় দফায় এক পক্ষ বহিরাগত সন্ত্রাসীদের সঙ্গে নিয়ে প্রতিপক্ষের উপর হামলা চালায়। এসময় জুবায়ের নামে এক হকার গুরুতর আহত হন। আহত জুবায়েরকে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে নেওয়ার পর রাত ৮টার দিকে তিনি মারা যান।


শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) হকার ও আশেপাশের লোকজনকে জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় যে, হকার নেতা আসাদ হকারদের কাছ থেকে চাঁদা তুলে। আসাদের সালা ইকবাল সেই চাঁদার টাকা তুলতে গিয়ে হকারদের সাথে বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে এই ঘটনা ঘটে। পরে আসাদের সালা ইকবাল নিহত জুবায়েরকে ছুরিকাঘাত করে। ইকবালের সাথে চাষাড়া ও গলাচিপার একদল গ্রুপ জড়িত। হকার নেতা আসাদ বিভিন্ন নামধারী নেতাদের নাম বিক্রি করে এই চাঁদাবাজী করে। কিন্তু এখনো গ্রেফতার হয়নি আসামিরা। 


গত ২৬ অক্টোবর র‍্যাব-১১ হত্যাকাণ্ডের মূল আসামী ইকবালকে গ্রেফতার করে৷ কিন্তু মাস্টারমাইন্ড হকার নেতা আসাদ ও অন্যান্য আসামিদেরকে দ্রুত গ্রেফতারের দাবী জানিয়েছে নিরহ হকারের পরিবার।