বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীতে আয়োজিত টুর্নামেন্টের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান খেলাধূলা মনোবল শক্ত রাখে: টিটু

সকাল নারায়ণগঞ্জঃ

মিশাল ফাউন্ডেশনের পৃষ্ঠপোষকতায় আয়োজিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও ৫০তম স্বাধীনতা দিবস উদযাপন উপলক্ষে ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ফাইনাল এবং পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে।
শুক্রবার রাত ১১টায় নগরীর খানপুরস্থ পোলষ্টার ক্লাব মাঠে ফাইনাল ম্যাচের খেলা ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ও নারায়ণগঞ্জ ক্লাবের সভাপতি তানভীর আহমেদ টিটু।
অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তিলাওয়াত করেন মিশাল ফাউন্ডেশনের সভাপতি মো. নাঈম হোসেন মিশালের বড় ছেলে মোহাম্মদ উমার ফারুক। পোলষ্টার ক্লাবের সভাপতি মো. আলমগীর কবির বকুলের সভাপতিত্ব ও পারভেজের সঞ্চালনায় এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য মো. শামসুজ্জামান ভাষানী, পোলষ্টার ক্লাবের সাবেক সভাপতি মো. শামসুল হক, সাধারণ সম্পাদক মো. আরিফুর রহমান, খানপুর ব্রাঞ্চ রোড পঞ্চায়েত পরিষদের সভাপতি মো. মোয়াজ্জেম হোসেন, সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির পোকন।
মো. নাঈম হোসেন মিশালের সার্বিক তত্বাবধানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় দলের সাবেক ক্রিকেটার মো. জাহাঙ্গীর আলম, জেলা শ্রমিক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. আসলাম, খানপুর ব্রাঞ্চ রোড জামে মসজিদের সভাপতি হানিফ কবির বাবুল, সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদ, ১১ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মো. জসিম উদ্দিন সরদার, ১২ নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি সেলিম খান, পোলষ্টার ক্লাবের সহ সভাপতি নূর উদ্দিন আহমেদ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হাসান রিয়েল, ব্যবসায়ী ও সমাজসেবক মো. শাহীন, কন্টিনেন্টাল ইন্স্যুরেন্স লি. সহ ব্যবস্থাপনা পরিচালক হারুন অর রশিদ কাজল। অন্যান্যদের মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন আরিফ হোসেন, সাগর, মিশু, সবুজ, অপু সহ মিশাল’র বন্ধুমহল। উদ্বোধনী বক্তব্যে মিশাল ফাউন্ডেশনের সভাপতি নাঈম হোসেন মিশাল বলেন, প্রথমেই শুকরিয়া জ্ঞাপন করছি মহান আল্লাহ তায়ালার দরবারে যে আমরা শেষতক সুন্দরভাবে এই টুর্নামেন্ট সম্পন্ন করতে পেরেছি। আমি ধন্যবাদ জানাই জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক তানভীর আহমেদ টিটু ভাইকে।
এতো ব্যস্ততার মাঝেও তিনি আমাদের এই টুর্নামেন্টের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে এসে সময় দিয়েছেন। আমরা আশা করবো, আগামীতেও যেনো টিটু ভাই সবসময় আমাদের পাশে থাকেন। তার মূল্যবান সময় ও সুযোগ দিয়ে আমাদের সামনে এগিয়ে যেতে সহয়তা করেন। মিশাল আরও বলেন, খেলাধূলা আমাদের মাদক থেকে দূরে রাখে। তাই প্রতিটি পরিবারের অভিভাবকদের প্রতি আমার ব্যক্তিগত অনুরোধ, আপনার সন্তানকে পড়াশুনার পাশাপাশি খেলাধূলা করার সুযোগ করে দিন।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ও নারায়ণগঞ্জ ক্লাবের সভাপতি তানভীর আহমেদ টিটু বলেন, আমি অবাক হলাম যখন মিশালের বাচ্চা অনুষ্ঠান শুরুর সময় পবিত্র কোরআন থেকে তিলাওয়াত করলো। আমি এইজন্য অবাক হলাম যে, এই মিশাল আমার টিমের একজন খেলোয়াড় ছিলো। আমি মিশালকেই দেখেছি একটি বাচ্চা। আর আজ তার বাচ্চা আমার সামনে মাইকে কোরআন তিলাওয়াত করছে।
মিশালসহ যারা এই টুর্নামেন্টের আয়োজন করেছে আমি সবাইকে ধন্যবাদ জানাই। তানভীর আহমেদ টিটু আরও বলেন, অনুষ্ঠানের পৃষ্ঠপোষকসহ যারা আয়োজনে আছেন তাদের অনেকেই আমার কাছে দাবি-দাওয়া রেখেছেন। আমি তাদের সকলকে ধন্যবাদ জানাই। আমি সর্বাত্মক চেষ্টা করবো আপনাদের পাশে থাকার। অতীতেও আমি আপনাদের সাথে ছিলাম, এখনও আছি, ইনসাআল্লাহ আগামীতেও থাকবো। এলাকাবাসীর কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করে টিটু বলেন, অনেকেই হয়তো বিরক্ত হচ্ছেন এতো রাতে অনুষ্ঠান হওয়াতে। সত্যিকার অর্থে খেলার কিছু নিয়ম কানুন থাকে।
ফাইনাল ম্যাচ হয়েছে, তারপর অনুষ্ঠান। তার উপর আজ বাংলাদেশের খেলা ছিল। সবমিলিয়ে একটু দেড়ি হয়ে গেছে। তারপরেও বিষয়টা যেহুতু খেলাধূলার সেহুতু একটি সেক্রিফাইস করা যায়। কারণ খেলাধূলা মনোবল শক্ত রাখে, সমাজকে মাদকের ভয়বহ অভিশাপ থেকে রক্ষা করে।
এরআগে, টুর্নামেন্টের ফাইনাল ম্যাচে ক্রিকবাজ টিমকে ১৬ রানে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয় ভেনম লিজেন্ডস। অনুষ্ঠান শেষে ক্রিকবাজ টিমকে রানার্স আপ ট্রফি ও আট হাজার টাকা, একই সাথে চ্যাম্পিয়ন টিমকে চ্যাম্পিয়ন ট্রাফির সাথে ১৫ হাজার টাকা তুলে দেয়া হয়।