বন্দরে খান মাসুদ জেনারেটর সার্ভিসের কর্মচারী রফিককে মাদকসহ গ্রেফতারের ঘটনায় খান মাসুদকে নিয়ে অপপ্রচারে লিপ্ত একটি মহল

সকাল নারায়ণগঞ্জঃ

স্টাফ রিপোর্টার (আশিক):
বন্দরে খাঁন মাসুদ জেনারেটর সার্ভিসের কর্মচারী রফিকুল ইসলাম রফিককে মাদকসহ গ্রেফতারের ঘটনাকে কেন্দ্র করে জেলা যুবলীগ নেতা খান মাসুদকে জড়িয়ে অপপ্রচারে লিপ্ত রয়েছে একটি মহল ।
শুক্রবার (৩০ জুলাই) একটি বিবৃতির মাধ্যমে খান মাসুদ গনমাধ্যমের সহযোগিতা কামনা করেন।
বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়,বন্দরে খাঁন মাসুদ জেনারেটর সার্ভিসের কর্মচারী রফিকুল ইসলাম রফিককে ৫দিন পূর্বে নানা অনিয়মের কারনে চাকুরী থেকে অব্যাহতি প্রদান করা হয় । পাশাপাশি প্রতিষ্ঠানটির মালিক খাঁন মাসুদ তার নিজস্ব ফেসবুক পেজে একটা ষ্টেটাসও দেয়। ওই ষ্টেটাসে লেখা ছিল নানা অনিয়মের সাথে জড়িত থাকায় খান মাসুদ জেনারেটর সার্ভিস নামে বিদ্যুতিক প্রতিষ্ঠান থেকে রফিকুল ইসলাম নামে এক কর্মচারীকে অব্যাহতি দেয়া হইল। ওর সাথে কোন ধরনের লেনদেন করলে খান মাসুদ জেনারেটর সার্ভিস দায়ী থাকবেনা। অথচ এই ঘটনার ২দিন পর না’গঞ্জের সদর থানা পুলিশ রফিকুল ও তার সহযোগীকে মাদকসহ গ্রেফতারের ঘটনাকে কেন্দ্র করে গত শুক্রবার না’গঞ্জের কয়েকটি গনমাধ্যমে খান মাসুদের নাম জড়িয়ে অপপ্রচার করা হয়। আসন্ন নাসিক নির্বাচনে খান মাসুদ ২২নং ওয়ার্ড সম্ভাব্য প্রার্থী। এমন সময়ে খাঁন মাসুদের প্রতিপক্ষরাই কৌশলে ঘায়েল করতে এমন অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছে। কেউ কেউ ঘোলা পানিতে মাছ শিকারের চেষ্টা করছে। খাঁন মাসুদ এমন অপপ্রচারের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।