বন্ধ কারখানা খুলে দেওয়ার দাবিতে শহরে বিক্ষভ মিছিল

সকাল নারায়ণগঞ্জঃ

বন্ধ কারখানা খুলে দাও, দেওয়া গার্মেন্টস শ্রমিকদের দুই মাসের বকেয়া বেতন পরিশোধ কর, আদমজি ইপিজেড এ অবস্থিত কুংতুং এ্যাপারেলসের শ্রমিকদের বকেয়া পাওনা পরিশোধসহ সিনহা ওপেক্স গ্রæপের সংকট নিরশন করার দাবিতে নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে শ্রমিক সমাবেশ ও মিছিল অনুষ্ঠিত হয়
আজ সকাল ১১ টায় গার্মেন্টস শ্রমিক ফ্রন্ট নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার উদ্যোগে বন্ধ কারখানা খুলে দাও, শ্রমিকদের বকেয়া বেতন পরিশোধ, সিনহা ও ওপেক্স গ্রপের সংকট নিরশনের দাবিতে নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে বিক্ষভ সমাবেশ ও মিছিল অনুষ্ঠিত হয়।

গামেন্টস শ্রমিক ফ্রন্ট নারাায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি সেলিম মাহমুদের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্ট নারায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি আবু নাঈম খান বিপ্লব, সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন গার্মেন্টস শ্রমিক সংহতির কেন্দ্রীয় সভাপতি মাহমুদ হোসেন, রি-রোলিং স্টিল মিলস শ্রমিক ফ্রন্ট নারায়ণগঞ্জ জেলার সাধারণ সম্পাদক এস এম কাদির, গার্মেন্টস শ্রমিক ফ্রন্ট নারায়ণগঞ্জ জেলার সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম শরীফ, সিদ্ধিরগঞ্জ থানার সংগঠনের সভাপতি রুহুল আমিন সোহাগ, বিসিক শাখার সভাপতি নুর হোসেন সরদার, কাঁচপুর শিল্পাঞ্চল শাখার সহসভাপতি আনোয়ার খান, সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম, রুপগঞ্জ থানার সভাপতি মোঃ সোহেল।

নেতৃবৃন্দ বলেন, দেওয়া গার্মেন্টসের দুই মাসের বকেয়া বেতন পরিশোধ ও বন্ধ কারখানা অবিলম্বে খুলে দিতে হবে। মালিক ও প্রশাসনকে সংগঠনের পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ দেওয়ার পরেও প্রশাসন ও মালিক কর্তৃপক্ষ কার্যকরী কোন পদক্ষেপ নেয়নি বলে দাবি করেন।

আদমজী ইপিজেড এ অবস্থিত কুংতুং এ্যাপারেলস এর এক বছর যাবৎ বকেয়া পাওনা প্রায় ১০০ কোটি টাকা পরিশোধ করছে না। স্কায়ার গার্মেন্টসের শ্রমিকদের নামে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার ও সিনহা ওপেক্স গ্রæপের চলমান সংকট দ্রæত সমাধান করার দাবি জানান নেতৃবৃন্দ।

মালিকরা শ্রমিকদের প্রাপ্য পাওনা না দিয়ে অবৈধভাবে কারখানা বন্ধ করে দেয়। শ্রমিকরা বকেয়া বেতন না পেয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছে। তাই শ্রম আইন লংঘনকারী মালিদের গ্রেফতার করে তাদের স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করে শ্রমিকদের আইনানুগ পাওনা পরিশোধ করার দাবি জানান ।

বার্তাপ্রেরক-
রুহুল আমিন সোহাগ