টাকা ও স্বর্ণালঙ্কার নিয়ে স্বামী চম্পট

সকাল নারায়ণগঞ্জঃ

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার চর কাশিপুর এলাকায় ৫ কন্যা সন্তানকে ফেলে অর্ধ লক্ষাধিক টাকা ও ০৪ ভরি স্বর্ণ নিয়ে উধাও হয়েছেন মাহেব (৪০) নামে এক ব্যক্তি। এ অর্থ ও স্বর্ণালংকার নিয়ে পালিয়ে যেতে ইন্ধন দেয় রিপন নামের আরেক ব্যক্তি। এ ঘটনায় মাহেবের স্ত্রী মধু বেগম (৩৫) বাদী হয়ে ফতুল্লা মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন।
সাধারণ ডায়েরীতে স্ত্রী মধু বেগম উল্লেখ করেন, নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার চর কাশিপুর গ্রামের মৃতঃ আমিনুল হকের মেয়ে মধু বেগমের সাথে একই গ্রামের মাহেব’র সাথে ২২ বছর পূর্বে ইসলামী শরীয়ত মোতাবেক বিয়ে হয়। দাম্পত্য জীবনে তাদের সংসারে ৫ মেয়ের জন্ম হয়। বিয়ের পর থেকে সন্তানদের কোনো ভরণ-পোষণ নি দিয়ে উল্টো যৌতুকের জন্য স্ত্রী মধু বেগমকে শারীরিক ও মানুষিক অত্যাচার নির্যাতন করতো স্বামী মাহেব। ভরণ-পোষণের টাকা চাইলে ঢাকাস্থ গুলিস্তান থানাধীন সিদিক্ক বাজার এলাকান মৃতঃ মান্নান মিয়ার ছেলে মোঃ রিপন (২৮)’র ইন্ধনে স্বামী মাহেব আমাকে মারধর করে তার সংসার ছেড়ে চলে যাইতে বলতো।
গত ২১ জুলাই দুপুরে আমার অনুপস্থিতিতে রিপনের ইন্ধনে আমার স্বামী ০৪ ভরি স্বর্ণালঙ্কার ও কিস্তি হইতে উত্তোলনকৃত নগদ ৫০,০০০/- (পঞ্চাশ হাজার) টাকা নিয়ে চলে যায়। পরবর্তীতে স্বামীর ব্যবহৃত মোবাইল নম্বর ০১৯৫২৯১২১৯৫, ০১৭১২৯৫৫২৯৯, ০১৯২৩৭৭৮৪৪০ গুলোতে ফোন করিলে ফোন রিসিভ করে নি। পরবর্তীতে আমি ২নং বিবাদী রিপনকে এ বিষয়ে জানাইলে রিপন আমাকে সহ আমার মেয়েদের অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে এবং আমাদেরকে বিভিন্ন প্রকার ভয়-ভীতি ও হুমকি প্রদান করে। বিবাদীরা আমাদেরকে আর্থিক ভাবে ক্ষতি ও হয়রানী করেছে। বিবাদীদ্বয় যে কোন সময় আমার ও আমার মেয়েদের বড় ধরনের ক্ষতি করতে পারে তাই ফতুল্লা মডেল থানায় সাধারণ ডায়েরি করছি।