হকার উচ্ছেদে রয়েছে হাইকোর্টের রায়, কিন্তু হকার বসাতে রহিম মুন্সী ও আসাদের কী ফয়দা?

সকাল নারায়ণগঞ্জ:

স্টাফ রিপোর্টার (আশিক)

হকার উচ্ছেদের বিষয়ে হাইকোর্টের রায় রয়েছে। তাই হাইকোর্টের রায় অনুযায়ী মেয়র মহোদয়ের আদেশে হকার উচ্ছেদ করেছে পুলিশ। কিন্তু হকারদের উচ্ছেদের পর তাদের বসতে না দেয়ায় হকাররা ও নারায়ণগঞ্জ জেলা হকার্স সংগ্রাম পরিষদের নেতাকর্মীরা বিক্ষোভ মিছিল করছে। 

হকারদের ফুটপাতে বসাতে হকারদের নিয়ে বিক্ষোভ মিছিল করছে রহিম মুন্সী ও আসাদ। হকারদের ফুটপাতে বসা নিয়ে রহিম মুন্সী ও আসাদের কি ফয়দা?

এর আগেও বিভিন্ন পত্রিকায় রহিম মুন্সী ও আসাদের নামে নিউজ হয়েছে। তারা হকারদের কাছ থেকে চাঁদা আদায় করে। এর আগেও যখন উচ্ছেদ হয়েছিল তখন তারা মিছিল করে বিভিন্ন কায়দায় হকারদের ফুটপাতে বসায়। হকারদের ফুটপাতে বসিয়ে তাদের কাছ থেকে চাঁদা নেয় তারা। 

বিভিন্ন পথচারীরা জানান, ফুটপাতে হকার উচ্ছেদের পর তারা খুব সহজেই রাস্তা দিয়ে চলাচল করতে পারছেন। হকার উচ্ছেদের পর এখন রাস্তায় ছিনতাইকারীদের আনাগোনাও কম দেখা যাচ্ছে। রাস্তায় কোনো যানজট সৃষ্টি কম হচ্ছে এবং পথচারীরা নিরদিধায় চলাচল করতে পারছে। 

হকার উচ্ছেদের কারণে সোনালী ব্যাংকের নিচে অনেকেই কোনো ভির ছাড়া সহজেই চলাচল করতে পারছে। ব্যাংক কর্মকর্তারাও সহজেই ব্যাংকে যেতে পারছেন। 

রহিম মুন্সী ও আসাদ হকারদের কাছ থেকে চাঁদা নিয়ে বাড়ি করেছেন। এখন হকার উচ্ছেদের পর চাঁদা না পাওয়ায় তারা হকারদের উস্কানি দিয়ে হাইকোর্টের রায়কে অমান্য করে বিক্ষোভ মিছিল করছে এবং শহরে যানজটের সৃষ্টি করছে।