বন্দরে আইন-শৃংখলা কমিটির মাসিক সভা অনুষ্ঠিত

 সকাল নারায়ণগঞ্জঃ

স্টাফ রিপোর্টার (আশিক)

আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতির চরম অসহনীয় মূর্হুতে বন্দর উপজেলা আইন শৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। 


বন্দর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা এম এ রশিদ বলেন, আইনশৃংখলার সভায় যা আলোচনা বা সিদ্ধান্ত হয় তার কোন বাস্তবায়ন হয় না। যার ফলেই দীর্ঘদিন যাবত মদনপুরের চাদাবাজী অব্যাহত আছে। এখন থেকে আইনশৃংখলা কমিটির সভার সিদ্ধান্ত গুলো মনিটরিং করা হবে। 


আজ সোমবার (২৩ নভেম্বর) সকালে বন্দর উপজেলা মাসিক আইনশৃংখলা কমিটির সভায় তিনি এ কথা বলেন। 


বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শুক্লা  সরকারের সভাপতিত্বে উক্ত সভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সানাউল্লা সানু, বন্দর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মহিউদ্দিন সিদ্দিকী,বন্দর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এহসানউদ্দিন আহমেদ,মুসাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারময়ান মাকসুদ আহমেদ,বন্দর থানার ওসি( তদন্ত) তারিকুল ইসলাম,পল্লী বিদ্যুত বন্দর জোনাল অফিসের ডিজিএম।

উপস্থিত ছিলেন বন্দর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আসমা সুলতানা নাসরীন,উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ছলিমা হোসেন শান্তা, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ডেপুটি কমান্ডার কাজী নাসির,বি এম ইউনিয়ন স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ আজিজুর রহমান, হাজী ইব্রাহীম আলমচান স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ হালিম মাজহারসহ বিভিন্ন দপ্তর প্রধানগন। 


সভায় বন্দর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মহিউদ্দিন সিদ্দিকী বন্দর ১ নং খেয়াঘাটে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদকে স্বাগত জানান এবং কোভিট-১৯ সংক্রমন ঠেকাতে খেয়া পারাপারকারী সকল যাত্রীদের মাক্স পড়া বাধ্যকরনের ব্যবস্থা নেয়ার জন্য প্রশাসনের প্রতি দাবি জানান।


ভাইস চেয়ারম্যান সানাউল্লাহ সানু  ফরাজীকান্দা গলাকাটাপুল সংলগ্ন সড়কের পাশে নাসিকের ময়লার ভাগারের অপসারন দাবি করেন। বন্দর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এহসানউদ্দিন আহমেদ ক্রাইমজোন ক্ষ্যাত তালতলা এলাকায় সড়কের দুপাশের ঝোপঝার পরিস্কার করায় ধামগর ইউপি চেয়ারম্যান মাসুম আহমেদকে ধন্যবাদ জানান এবং সড়কটিতে পর্যাপ্ত আলোর ব্যবস্থা করার জন্য দাবি জানান।

 
ওসি( তদন্ত) তারিকুল ইসলাম সার্বিক আইন শৃংখলা পরিস্তিতি তুলে ধরেন এবং মাদক নির্মুলে সকলের সহযোগীতা কামনা করেন বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ঘোসনা দেন বন্দরে যারা মাক্স ছাড়া বাসা বের হবেন  তারা যেনো জরিমানার ৫ শত টাকা সাথে নিয়ে বের হন। তা না হলে জেলে যেতে হবে। সভায় করোনার প্রকোপ ঠেকাতে সকলকে কাজ করার অনুরোধ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষণা করেন।