পাসপোর্ট অফিসে হামলা ও ভাংচুর

সকাল নারায়ণগঞ্জঃ

উদ্বোধনের মাত্র ৭দিন পর নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসে হামলা ও ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে।  হামলায় পাসপোর্ট অফিসের অফিস সহকারী মহসিন ইসলামসহ কয়েকজন আহত হয়েছে। 

ভাঙচুর করা হয়েছে অফিসের কাউন্টারের কয়েকটি গ্লাস। এ ঘটনায় আজমল হোসেন নামে এক কানাডা প্রবাসীকে আটক করা হয়েছে।  


রবিবার (১৫ নভেম্বর) সকালে এ ঘটনা ঘটেছে।  আটক আজমল হোসেন নারায়ণগঞ্জের উত্তর চাষাড়ার বীরমুক্তিযোদ্ধা খাজা হোসেনের ছেলে।

নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসেপার্ট অফিসের সহকারী পরিচালক মাহামুদুল হাসান দাবি করে বলেন, আটক আজমল হোসেন কানাডা প্রবাসী।  সে পাসপোর্ট করার জন্য কাগজপত্র জমা দিতে আসেন। 

কিন্তু প্রয়োজনীয় কাগজপত্রগুলো সত্যায়িত করা ছিল না।  তাকে সত্যায়িত করে দেয়ার কথা বললে এ নিয়ে কথাকাটাকাটি হয়।  রোহিঙ্গা কিনা যাচাই করতে চাওয়ায় পাসপোর্ট অভিসে ভাংচুর করে। তার স্ত্রীর ও বাচ্চার কাগজপত্রেও সমস্যা ছিলো।


উল্লেখ্য, নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসটি এর আগে ছিলো নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ৯নং ওয়ার্ডের জালকুড়ি এলাকায়।  দীর্ঘ ৬ বছর ভাড়া বাসায় থাকার পর গত ৮ নভেম্বর ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিঙ্ক রোডের পাশেই সাইনবোর্ড এলাকায় অবস্থিত নতুন ভবনে নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের কার্যক্রম শুরু হয়েছে