নাগরিক সচেনতা ও বিশ্ব সংহতিই মরন ব্যাধি এইডস রোধে প্রধা সহায়ক – আনন্দধামে বিচারপতি মীর হাসমত আলী

সকাল নারায়ণগঞ্জঃ

নাগরিক সচেনতা ও বিশ্ব সংহতিই মরন ব্যাধি এইডস রোধে প্রধা  সহায়ক – আনন্দধামে বিচারপতি মীর হাসমত আলী


এইডস সম্পর্কে অসচেতনতা মানব সভ্যতা বিলুপ্তির কারন হতে পারে – আনন্দধামে ব্যারিস্টার আমিরুল ইসলাম 


নিয়ন্ত্রিত জীবনই এইডস প্রতিরোধে মুখ্য ভূমিকা রাখতে পারে- আনন্দধামে অতিরিক্ত এস পি সুবাস চন্দ্র সাহা 

১ লা ডিসেম্বর ২০২০, আনন্দধামের উদ্যোগে বিশ্ব এইডস দিবস উপলক্ষে “এইডস মহামারী মোকাবিলায় বিশ্ব সংহতি ও নাগরিক দায়িত্ব”- শীর্ষক এক আলোচনা সভা স্থানীয় ইডেন থাই এন্ড চাইনিজ রেস্টুরেন্টে অনুষ্ঠিত হয় ।
আনন্দধামের নির্বাহী চেয়ারম্যান হাসিনা রহমান সিমুর সভাপতিত্বে এই অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের মাননীয় বিচারপতি মীর হাসমত আলী ও আনন্দধামের উপদেষ্টা বাংলাদেশ সরকারের প্রাক্তন মন্ত্রী ব্যারিস্টার আমিরুল ইসলাম। অনুষ্ঠানের মুখ্য আলোচক ছিলেন বাবু সুবাস চন্দ্র সাহা, সম্মানিত অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নারায়ণগঞ্জ। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন নাঃগঞ্জ সদর নৌ থানার ওসি মোঃ শহিদুল আলম।
আনন্দধামের যুগ্ম মহাসচিব বাবু রিপন ভাওয়ালের সঞ্চালনায় এসময় অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট সমাজ সেবক মোঃ শহিদুল্লাহ, আনন্দধামের অতিরিক্ত চেয়ারম্যান মোঃ শাহ আলম, ভাইস চেয়ারম্যান মতিউর রহমান মুক্তি, অতিরিক্ত মহাসচিব আলহাজ্ব আবদুল মান্নান মেম্বার, যুগ্ম মহাসচিব বাবু শ্যামল দত্ত ও পরিচালকদের মধ্যে সর্বজনাব এনামুল হক প্রিন্স, ডালিম জাহাঙ্গীর, মোঃ শফিউদ্দিন, মনজুর মুন্না, হরি চরন শীল, রতন সাহা, প্রান বল্লভ দাস,রনজিত পোদ্দার , সৈয়দ মোক্তার হোসেন, মোঃ মোক্তার হোসেন, রাজা মিয়া, মাকসুদূর রহমান  হিটু, শাহাদাত হোসেন, পমুখ।
বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের মাননীয় বিচারপতি মীর হাসমত আলী তার বক্তব্যে বলেন দীর্ঘ কয়েক দশক চেস্টার পরে আজো এর কোন ভ্যাক্সিন আবিস্কার হয়নি, তাই মানবগোষ্ঠীর নাগরিক সচেনতা, সাবধানতা ও এই ব্যাপারে বিশ্ব সংহতিই একমাত্র এইডস মোকাবেলায় কার্যকরী পদক্ষেপ হতে পারে।
আনন্দধামের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার আমিরুল ইসলাম তার বক্তব্যে এইডস প্রতিরোধে গুরুত্ব দিয়ে  বলেন পৃথিবীর ভয়াবহ  সংক্রমণ রোগ হচ্ছে এইডস। রক্ত ও লালার মাধ্যমে এই রোগ সংক্রমিত হয়ে থাকে। এই সম্পর্কে যদি আমরা মানবগোষ্ঠীকে সচেতন না করতে পারি তাহলে মানব সভ্যতা বিলুপ্তির কারন হতে পারে।     
অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নারায়ণগঞ্জ বাবু সুবাস চন্দ্র সাহা বলেন, পৃথিবীতে অনেক দুরারোগ্য মরন ব্যাধি আছে যার কোন চিকিৎসা নেই কিন্তু এইডস হচ্ছে এমন মরন ব্যাধি যা সংক্রামিত হয় মুখের লালা ও রক্তের মাধ্যমে। একমাত্র নিয়ন্ত্রিত জীবনই এইডসের বিস্তার রোধে মুখ্য ভূমিকা পালন করতে পারে। তিনি বলেন এইডস সম্পর্কে আমাদের রক্ষণশীল মনোভাব বদলাতে হবে। আমাদের জনগনকে জানাতে হবে কিভাবে এই রোগ একজনের শরীর থেকে অন্য জনের শরীরে সংক্রমিত হয়। এর মাধ্যমে সচেতন হয়ে নিয়ন্ত্রিত জীবনে অভ্যস্ত হলেই এইডসের বিস্তার রোধে মানুষ সক্ষম হবে।  
সভাপতির বক্তব্যে হাসিনা রহমান সিমু বলেন ৬ কোটি ৯০ লক্ষ মানুষ ইতিমধ্যেই এই রোগে মারা গেছে, প্রায় ৪ কোটি মানুষ মৃত্যুর প্রহর গুনছে। তাই পৃথিবীকে রক্ষা করতে হলে আমাদের নিয়ন্ত্রিত জীবনে অভ্যস্ত হতে হবে।